অর্থ ও বাণিজ্য জাতীয় ঢাকা সারাদেশ

পত্রিকায় রিপোর্ট প্রকাশিত হওয়ায় বেনাপোল স্থল বন্দরে সচল লোড আনলোড

মোঃ রাসেল ইসলাম,বেনাপোল(যশোর)প্রতিনিধি: দেশের সর্ববৃহৎ স্থল বন্দর বেনাপোলে দীর্ঘ দুই দিন যাবৎ কর্ত্তৃপক্ষের নানা মুখী তাল বাহানায় শ্রমিক অসন্তোষ দেখা দিলে পন্য আমদানী রপ্তানীতে ঢস নামে অর্থাৎ মালামাল খালাসে স্থবিরতা নেমে আসে। ফলে লক্ষ লক্ষ টাকার রাজস্ব আয় থেকে সরকার বঞ্চিত হয়ে পড়ে। সেই সাথে বেনাপোল বন্দর ব্যবহার কারী আমদানী এবং রপ্তানীকারকগণ বিপাকে পড়ে যায়। বন্দরের (সিএন্ডএফ) ব্যবসায়ী বৃন্দ এর তীব্র প্রতিবাদ জানালেও স্থল বন্দর কর্ত্তৃপক্ষ গোমরাহী ভাব পোষন করতে থাকে। এমতবস্থায় বন্দর ব্যবহার কারী সকল প্রতিষ্ঠান সাংবকাদিকদের দ্বারস্থ হলে প্রিন্ট এবং ইলেট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ সোমবার বেনাপোল স্থল বন্দর পরিচালক প্রদোষ কান্তি দাসের সাক্ষাত নিতে তার কার্যালয়ে গেলে বন্দর পরিচালক সাক্ষাতদানে অপারগতা প্রকাশ করে। এক পর্যায়ে সাংবাদিকদের জোরালো ভুমিকায় তিনি সাক্ষাতকার দিতে রাজি হন। সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি নিজেকে বিব্রত বোধ করতে থাকেন। তার এই সাক্ষাতকারের বিস্তারিত বিবরন বর্ধমান টিভিতে প্রচারিত হতে থাকলে ঐ দিনই বিকাল থেকেই পুনরায় স্থল বন্দরের পন্য খালাসের কার্যক্রম সচল হতে থাকে। শ্রমিকরা পন্য খালাসে মনোযোগী হয়। বন্দর ব্যবহার কারীরা বলছেন কর্ত্তৃপক্ষের অযৌক্তিক গোমরাহীর কারনে ব্যবসায়ী এবং সরকার ভীষন ভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হবে।