খুলনা প্রধান খবর রাজনীতি

মেয়র হলে খুলনাকে সন্ত্রাস ও মাদক মুক্ত নগরী গড়ে তুলবো- আব্দুল খালেক

download (23)খুলনা ব্যুরো :সম্মিলিত নাগরিক কমিটি মনোনীত ও ১৪ দল সমর্থিত মেয়র প্রার্থী আলহাজ্ব তালুকদার আব্দুল খালেক বলেছেন, একসময়ের মৃত্যুপুরী খুলনা এখন মানবপুরীতে পরিণত হয়েছে। অতীত সরকার আমলে খুলনায় মানুষের স্বাভাবিক মৃত্যু কোন গ্রারান্টি ছিলোনা। প্রতিদিন হত্যা, খুন ছিনতাই ডাকাতি ও চুরি ছিলো নিত্যদিনের ঘটনা। সন্ত্রাসের প্রধান শক্তি হিসেব ব্যবহ্নত হতো মাদক। আর প্রতিবেশী দেশ থেকে আশা সর্বগ্রাসী মাদক যখন আমাদের সমাজকে গ্রাস করে ফেলেছিল, তখন দেশে মাদকের অবৈধ অর্থের কারনে আইন-শৃংখলা চরমভাবে ভেঙ্গে পড়ে। এ দু’টিকে দমন করতে সরকারের সহযোগিতায় শক্তহাতে কাজ করেছি। এখন আইন-শৃংখলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে থাকায় খুলনাসহ দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের মানুষের মধ্যে কোন ভয় বা আতংক নেই। মেয়র নির্বাচিত হলে খুলনার আইন-শৃংখলা পরিস্থিতি আরো কঠোর হস্তে নিয়ন্ত্রন করে খুলনাকে সন্ত্রাস ও মাদক মুক্ত নগর হিসেবে গড়ে তুলবো।

সোমবার দিনব্যাপী নগরীর বিভিন্নস্থানে গণসংযোগ, মতবিনিময় ও পথসভা কালে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি সকাল সাড়ে ৭টায় দৌলতপুর থানার ৬নং ওয়ার্ডের নতুন রাস্তার মোড় থেকে গণসংযোগ শুরু করেন। পরে তিনি কাশিপুর, কবির বটতলা, দত্তপাড়া, সাহা পাড়া, মজুমদার পাড়া, সবুজ সংঘ, কেশবলাল রোড, কুন্ডুপাড়া, পাবলা মেইন রোড, চুমুর বটতলা, ৪নং ওয়ার্ডের দেয়ানা দক্ষিণপাড়া, মোল্লাপাড়া, উত্তরপাড়া, কৃষি কলেজ রোড, কৃষি কলেজ, ৫নং ওয়ার্ডের দফাদার পাড়া, বনিক পাড়া, এলাকায় গণসংযোগ, মতবিনিময় ও পথসভা করে তিনি তালা প্রতিকে ভোট দিয়ে নগরবাসীকে পুনরায় সেবা করার সুযোগ চান। সন্ধ্যা ৬টায় মেয়র প্রার্থী তালুকদার আব্দুল খালেক বিবিসি’র বাংলা সংলাপ অনুষ্ঠানে যোগদান করেন।

এস এম মোস্তফা রশিদী সুজাঃ খুলনা জেলা আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক ও সাবেক হুইপ এস এম মোস্তফা রশিদী সুজার নেতৃত্বে মহানগরীর ২৮, ৩০ এবং ৩১নং ওয়ার্ডের দক্ষিণ টুটপাড়া, জোড়াকল বাজার, জাকারিয়া রোড, ছোট খালপার, বড় খালপার, খৃষ্টান পাড়া, চানমারী বাজারসহ বিভিন্ন এলাকায় গনসংযোগ করে তালুকদার আব্দুল খালেকের তালা প্রতীকে ভোট প্রার্থনা করেন। এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগ নেতা মোকলেসুর রহমান বাবলু, অধ্যাপক আশরাফুজ্জামান বাবুল, আক্তারুজ্জামান বাবু, শেখ মোঃ আবু হানিফ, এ বি এম কামরুজ্জামান, খায়রুল আলম মারুফ খান, এম এ হাসান প্রমূখ।

আলহাজ্ব মিজানুর রহমান মিজান ও ১৪দল ঃ সম্মিলিত নাগরিক কমিটি মনোনীত মেয়র প্রার্থী আলহাজ্ব তালুকদার আবদুল খালেকের পক্ষে তালা প্রতীকে ভোট ক্যাম্পেইন করেন ১৪দলের সমন্বয়ক আলহাজ্ব মিজানুর রহমান মিজান। এসময়ে তার সাথে ক্যাম্পেইন করেন ওয়ার্কার্স পার্টির পলিট ব্যুরোর সম্পাদক কমরেড হাফিজুর রহমান ভুইয়া, ন্যাপের ফজলুর রহমান, সাম্যবাদী দলের এফএম ইকবার হোসেন, ওয়ার্কার্স পার্টির দেলোয়ার উদ্দিন দিলু, মফিদুল ইসলাম, জাকের পার্টির দেলোয়ার উদ্দিন দিলু, মশিউর রহমান, বাদশা হাওলাদার, চ.ম মজিবর রহমান, মীর মোঃ লিটনসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। নেতৃবৃন্দ ২০, ২৪ ও ২৬নং ওয়ার্ডে সকাল ৮টা থেকে ব্যাপক গণসংযোগ করেন। এসময়ে নেতৃবৃন্দ শেখ হাসিনা মনোনীত মেয়রপ্রার্থী তালুকদার আব্দুল খালেককে তালা প্রতীকে ভোট দিয়ে খুলনার উন্নয়ন ও নগরবাসীর সেবা করার জন্য পুনরায় মেয়র নির্বাচিত করার আহবান জানান।

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় নেতা ও সাবেক ছাত্রনেতা এস.এম কামাল বলেছেন, খুলনার উন্নয়ন ও শ্রমিকদের ভাগ্যের পরিবর্তন ঘটাতে হলে তালুকদার আব্দুল খালেকের কোন বিকল্প নেই। তিনি আরো বলেন, বিএনপি-জামায়াত জোট সরকার খালিশপুর সহ দেশের বড় বড় শিল্প প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দিয়েছিল। তাদের মেয়র প্রার্থী নগরবাসীকে বন্ধ শিল্প প্রতিষ্ঠান গুলিকে পুনরায় চালুর মিথ্যা প্রলোভন দেখিয়ে শ্রমিক সমাজের সাথে প্রতারণা করছে। তাদের কোন প্রলোভনেই শ্রমিকরা প্রতারিত হবেনা। খালিশপুর থানার ৭, ৮ ও ১০ নং ওয়ার্ডে গণসংযোগ, পথসভা ও মতবিনিময় কালে তিনি এসব কথা বলেন। এসময়ে উপস্থিত ছিলেন, আওয়ামী লীগ নেতা একেএম সানাউল্লাহ নান্নু, মনিরুল ইসলাম বাশার, শেক মজিবর রহমান, এমএ মুজিব, মানিক, রেহানা আক্তার, রফিকুল ইসলাম রঞ্জু প্রমুখ নেতাকর্মী।

গাজী আব্দুল হাদি ঃ সম্মিলিত নাগরিক কমিটি মনোনীত মেয়র প্রার্থী আলহাজ্ব তালুকদার আবদুল খালেকের পক্ষে তালা প্রতীকে ভোট ক্যাম্পেইন করেছেন, নির্বাচন পরিচালনা কমিটির যুগ্ম আহবায়ক ও উপজেলা চেয়ারম্যান গাজী আব্দুল হাদি। ক্যাম্পেইনে অংশ গ্রহন আওয়ামী লীগ এসময়ে উপস্থিত ছিলেন, বটিয়াঘাটা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক সংসদ সদস্য পঞ্চানন বিশ্বাস, মংলা পৌরসভার সাবেক মেয়র আব্দুস সালাম, দাকোপ উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব শেখ আবুল হোসেন, ফুলতলা উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি বিএমএ সালাম, ডাঃ মাহবুব, শওকত আলী আকুঞ্জী, আঃ হাকিম, এমরান হোসেন, মোহাম্মদ হানিফ, আব্দুর রাজ্জাক হোসেন, ২৫নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতা আইয়ুব আলী মুন্সী, জাহাঙ্গীর হোসেন প্রমূখ। ২৫নং ওয়ার্ডের খোরশেদ নগর, কুপা মসজিদ, শশীভূষন রোড এলাকায় গনসংযোগ করে তালা প্রতীকের পক্ষে ভোট প্রার্থনা করেন।

সদর থানা আওয়ামী লীগঃ সদর থানা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে নগরীর ৩১নং ওয়ার্ডের বিভিন্ন স্থানে তালা প্রতীকে ভোট প্রার্থনা করা হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগ নেতা অধ্যক্ষ শহিদুল হক মিন্টু, জামাল উদ্দিন বাচ্চু, এ্যাডঃ সাইফুল ইসলাম, রফিকুর রহমান রিপন, আবুল কালাম, রফিকুল ইসলাম প্রমূখ।

নারায়ন চন্দ্র চন্দ এমপি ঃ সম্মিলিত নাগরিক কিমিটির মেয়র প্রার্থী তালুকদার আব্দুল খালেকের তালা প্রতীকে দিনব্যাপী ভোট প্রার্থনা করেছেন খুলনা-৫ আসনের সংসদ সদস্য নারায়ন চন্দ্র চন্দ এমপি। তার নেতৃত্বে নগরীর ২৩নং ওয়ার্ডের মির্জাপুর রোড, বাইতিপাড়া, তালতলা, স্যার ইকবাল রোড, ছোট মির্জাপুর রোডসহ বিভিন্ন এলাকায় গনসংযোগ, পথ সভা ও মতবিনিময় করেন।

এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন মহানগর আওয়ামী লীগ নেতা অধ্যাপক ফকির আবু হোসেন, মালিক সরোয়ার উদ্দিন, শাহনেওয়াজ জোয়ার্দ্দার, বিশ্বজিৎ চন্দ্র চন্দ, জামিল আকতার, রাখি বেগম, তাহমিনা খাতুন, স্বপ্না গাইন, অমিত বিশ্বাস প্রমূখ।

ডাঃ শেখ বাহারুল আলমঃ খুলনা জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক, বিএমএ কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি ডাঃ শেখ বাহারুল আলমের নেতৃত্বে সোমবার নগরীর ৩১নং ওয়ার্ডের বিভিন্ন এলাকায় গনসংযোগ করে তলা প্রতীকের ভোট প্রার্থনা করা হয়। এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগ নেতা হুমায়ন কবীর ববি, অধ্যক্ষ দেলোয়ারা বেগম, মোতালেব হোসেন, শেখ মোঃ ফেরদৌস, ডাঃ বঙ্গকমল বসু, ডাঃ মামুন প্রমূখ।

পোলিং এজেন্ট প্রশিক্ষনঃ সম্মিলিত নাগরিক কমিটির মেয়র প্রার্থী তালুকদার আব্দুল খালেকের তালা প্রতীকের পক্ষে পোলিং এজেন্ট হিসেবে যারা নির্বাচনের দিনে ভোট কেন্দ্রে দায়িত্ব পালন করবেন তাদের প্রশিক্ষন শুরু হয়েছে। সোমবার খালিশপুর শ্রমিক ভবনে বিকাল ৫টায় খালিশপুর থানার ৯টি ওয়ার্ডের সমন্বয়ে নিয়োগ প্রাপ্ত পোলিং এজেন্টদের প্রশিক্ষন কর্মশালা সম্পন্ন হয়েছে। কর্মশালায় প্রশিক্ষক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন এ্যাডঃ মঈন উদ্দিন আহম্মেদ, মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এমডিএ বাবুল রানা, মহিলা সম্পাদক এ্যাডঃ অলোকা নন্দ দাশ, মাসুদ কবীর প্রমূখ।

ইজিবাইক শ্রমিক লীগঃ ইজিবাইক চালকদের উদ্দেশ্যে মেয়র প্রার্থী তালুকদার আব্দুল খালেক বলেন, কোন বিভ্রান্তিতে কান দেবেন না। কোন লোক বেকার হয়ে মানবেতর জিবন যাপন করুক এ রাজনীতি আমি করি না। পুনরায় আবার মেয়র নির্বাচিত হলে নগরীর ইজিবাইক চালকদের সকল ধরনের ন্যায্য দাবি দাওয়া পুরন করবো।

রবিবার দিবাগত রাত ১০টায় ইজিবাইক চালকদের সাথে মতবিনিময় কালে তিনি এসব কথা বলেন। এ সময়ে উপস্থিত ছিলেন মহানগর আওয়ামী লীগ নেতা অধ্যক্ষ শহিদুল হক মিন্টু, ফেরদৌস আলম চান ফরাজী, ছাত্তার খলিফা, শ্রমিক নেতা রনজিৎ কুমার ঘোষ, সাইফ হুমায়ন কবির, নওসের আলীসহ নগরীর ২শতাধিক ইজিবাইক চালক।

জেলা শ্রমিকলীগঃ সম্মিলিত নাগরিক কমিটির মেয়র প্রার্থী তালুকদার আব্দুল খালেকের তালা প্রতীকে জেলা শ্রমিকলীগের উদ্যোগে নগরীর ৩১নং ওয়ার্ডের বিভিন্ন এলাকায় গনসংযোগ করে ভোট প্রার্থনা করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন জেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি কেন্দ্রীয় নেতা বি.এম.জাফর এর নেতৃত্বে গনসংযোগে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন শ্রমিকলীগ নেতা শেখ মোঃ পীর আলী, মোঃ আব্দুল হালিম গাজী, শেখ সোলায়মান হোসেন দুলাল, মোঃ সবুর শিখদার, মোঃ আতিয়ার রহমান মোল্যা, এ্যাডঃ মঈন উদ্দিন আহম্মেদ প্রমূখ।

মুক্তিযোদ্ধা সংসদঃ নগরীর ২৩নং ওয়ার্ডের ধর্মসভা, জলিল মার্কেট, প্রেসক্লাব, স্যার ইকবাল রোড, সিমেন্ট্রিরোড, শান্তিধাম মোড়, সাহেবের কবর খানা রোডসহ বিভিন্ন এলাকায় গনসংযোগ করে তালা প্রতীকে ভোট প্রার্থনা করেছেন মুক্তিযোদ্ধারা। এ সময় উপস্থিত ছিলেন জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার সর্দার মাহাবুব রহমান, মহানগর মুক্তিযোদ্ধার কমান্ডার অধ্যাপক আলমগির কবির, সদর থানা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মোস্তাক আবেদীন, মুক্তিযোদ্ধা শেখ আমিনুল ইসলাম, মুক্তিযোদ্ধা মোঃ সাহেব আলী মোল্যা, মুক্তিযোদ্ধা মোঃ মজিবর রহমান তারা, মুক্তিযোদ্ধা হাফিজুর রহমান, মোঃ মনিরুজ্জামান মনি, মুক্তিযোদ্ধা আঃ সোবাহান খান, মুক্তিযোদ্ধা আঃ সালাম ফকির প্রমূখ।