অপরাধ খুলনা রাজনীতি

তেরখাদায় গুলি ও ধারালো অস্ত্রের আঘাতে আ’লীগের ৩ জন আহত

vwKeÍ

খুলনা ব্যুরো: খুলনার তেরখাদা উপজেলার নলিয়ারচর এলাকায় হাডুডু খেলা চলাকালে প্রতিপক্ষের ধারালো অস্ত্রেও আঘাত ও গুলিতে ৩ জন আহত হয়েছে। আহতরা হচ্ছে: হাসিনা বেগম (৪৭), কেরামত ফকির (৫০) ও আম্বিয়া বেগম (৫২)। আহতদের খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। উপজেলা আওয়ামীলীগের ২ পক্ষের মধ্যে বিরাজমান কোন্দলের জের ধরে এ ঘটনা ঘটেছে বলে জানা গেছে।

 

জানা গেছে, বৃহস্পতিবার বিকালে উপজেলার সাচিয়াদহ ইউনিয়ন পরিষদ এলাকার নলিয়ার চর মধ্যপাড়ায় সবুজের বাড়ির পাশের মাঠে কিশোরদের হাডুডু খেলা চলছিল। বিকাল ৬টার দিকে একটি পক্ষ ধারালো অস্ত্র ও আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে সেখানে হাজির হয় এবং প্রতিপক্ষের কেরামতকে উপর্যুপরি কূপিয়ে আহত করে। এ সময় সন্ত্রাসীরা তাকে লক্ষ করে গুলিও করে। পরে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান মৃত ইমলাকের স্ত্রীর ওপর তারা চড়াও হয় এবং তাকেও কূপিয়ে জখম করে। সন্ত্রাসীরা তাকে লক্ষ করেও গুলি করে। তাকে রক্ষায় এগিয়ে আসায় আম্বিয়াকেও সন্ত্রাসীরা কূপিয়ে জখম করে।

 

স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতারা জানিয়েছেন, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সরফুদ্দিন বিশ্বাস বাচ্চু ও স্থানীয় সংসদ সদস্য মোল্লা জালাল উদ্দিনের নেতৃত্বে উপজেলা আওয়ামীলীগ ২ ভাগে বিভক্ত। এই ২ গুপের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় প্রতিপক্ষরা এই হামলা চালায়। আহতরা মোল্লা জালাল গ্রুপের কর্মী বলে জানা গেছে।