খেলা প্রধান খবর

আশরাফুলের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি

2011-11-25-12-02-15-4ecf83c7da303-ashrafulঢাকা: ম্যাচ ফিক্সিং সংক্রান্ত আইসিসির তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত সব ধরনের প্রতিযোগিতামূলক খেলায় আশরাফুলের অংশগ্রহণের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড ( বিসিবি)।

মঙ্গলবার দুপুরে বিসিবি ভবনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ সিদ্ধান্তের কথা জানান বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন এমপি। একই সঙ্গে পরবর্তী এক সপ্তাহের মধ্যেই এ সংক্রান্ত আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করা হবে বলেও জানান তিনি।

উল্লেখ্য, ম্যাচ ফিক্সিং ও স্পট ফিক্সিংসহ ক্রিকেট জুয়ায় বাংলাদেশের ক্রিকেটার ও কর্মকর্তাদের জড়িত থাকার ব্যাপারে তদন্ত করছে আইসিসির দুর্নীতি দমন ও নিরাপত্তা ইউনিট (আকসু)।

ইতিমধ্যেই আকসুর কাছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগে (বিপিএল) ম্যাচ ফিক্সিংয়ের সঙ্গে নিজের জড়িত থাকার ব্যাপারে স্বীকারোক্তি দিয়েছেন আশরাফুল। পাশাপাশি আরও কয়েকজন সাবেক ক্রিকেটার ম্যাচ ফিক্সিংয়ে জড়িত বলে আকসুর জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছেন আশরাফুল।

বিষয়টি বিসিবির জন্য বিব্রতকর পরিস্থিতির সৃষ্টি করে। পাশাপাশি গভীর সঙ্কটে পড়ে বাংলাদেশের ক্রিকেটের আন্তর্জাতিক ভাবমূর্তি।

আকসুর কাছে আশরাফুলের স্বীকারোক্তি দেওয়ার পরও তার ব্যাপারে এতদিন সিদ্ধান্তহীন ছিল বিসিবি। অবশেষে মঙ্গলবারের সংবাদ সম্মেলনে ‍আশরাফুলের ওপর নিষেধাজ্ঞার মাধ্যমে বিসিবি এ ব্যাপারে অবস্থান পরিষ্কার করলো। জানা গেছে, তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ হওয়ার পরপরই চূড়ান্ত হবে আশরাফুল ভাগ্য।

সাংবাদিক সম্মেলনে পাপন আরও জানান, আগামী পাঁচ থেকে ছয় দিনের মধ্যে পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন জমা দেবে আকসুর তদন্তকারী দল। পরে আইসিসি ও বিসিবি যৌথভাবে প্রকাশ করবে ওই তদন্ত প্রতিবেদন। একই সঙ্গে আন্তর্জাতিক ম্যাচে দুর্নীতির সঙ্গে বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের জড়িত থাকার বিষয়েও আইসিসি তদন্ত করবে বলে জানান তিনি।

তবে তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ না হওয়া পর্যন্ত কাউকে দোষী সাব্যস্ত বলা যাবে না বলে উল্লেখ করেন পাপন। কিন্তু আশরাফুল যেহেতু জড়িত থাকার ব্যাপারে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন, তাই তার ওপর এ নিষেধাজ্ঞা জারি করা হলো বলে জানিয়েছেন বিসিবি সভাপতি।