খেলা প্রধান খবর

দক্ষিণ আফ্রিকার বড় জয়

sa-14189ক্রিড়া প্রতিবেদক : আইসিসি সহযোগী সদস্য সংযুক্ত আরব আমিরাতের বিপক্ষে ১৪৬ রানের বড় ব্যবধানে জয় পেয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা।  আর এ জয়ে দক্ষিণ আফ্রিকা ছয় ম্যাচের চারটিতে জিতে ৮ পয়েন্টে পুল-বি’র দ্বিতীয় স্থান দখল করে নিলো।

পয়েন্ট টেবিলের ২য় স্থান নিশ্চিতের লড়াইয়ে আইসিসি সহযোগী সদস্য সংযুক্ত আরব আমিরাতকে ৩৪২ রানের পাহাড়সম টার্গেট দিয়েছিলো দক্ষিণ আফ্রিকা।  ওয়েলিংটনে ডি ভিলিয়ার্সের ৯৯ রানের সুবাদে, ৬ উইকেটে ৩৪১ রানের বড় সংগ্রহ পায় প্রোটিয়ারা।  জবাবে, ৪৭ ওভার ৩ বলে ১৯৫ রানে আউট হয়ে যায় আরব আমিরাত।

আমিরাতের পক্ষে স্বপ্নিল পাতিল ৫৭ (অপরাজিত), আনোয়ার ৩৯, আমজাদ ২১ ও নাভিদ ১৭ রান করেন।  বোলিংয়ে দক্ষিণ আফ্রিকার ডি ভিলিয়ার্স ৩ ওভারে ১৫ রানে ২ উইকেট নিয়েছেন।  এছাড়া ২টি করে উইকেট আরও নিয়েছেন মরনে মরকেল ও ভারনন ফিল্যান্ডার।  একটি করে উইকেট পান জেপি ডুমিনি, ইমরান তাহির ও ডেল স্টেইন।

দলের হয়ে এ ম্যাচে একাই সর্বোচ্চ উইকেট (২টি) ও সর্বোচ্চ রান (৯৯) করায় ম্যাচ সেরা প্রোটিয়া অধিনায়ক এবি ডি ভিলিয়ার্স।

এর আগে, টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে দলীয় ১৭ রানে সাজঘরে ফেরেন হাশিম আমলা।  এরপর, রাইলি রসোউ এর সাথে ৬৮ রানের জুটি গড়ে দলীয় ৮৫ ও ব্যক্তিগত ২৬ রানে আউট হন ডি কক।  দ্রুতই সতীর্থকে অনুসরণ করেন রসোউ।  এরপর মিলার করেন ৪৯ রান।  তবে আবারো দারুণ খেলে ক্যারিয়ারের ৪৫তম ফিফটি তুলে নিয়ে, অধিনায়ক ভিলিয়ার্স সাজঘরে ফেরেন ৯৯ রানে।  শেষদিকে, বাহারদিয়েনের ঝড়ো গতির ৩১ বলে ৬৪ রানের ওপর ভর করে, ৩৪১ রানের বড় সংগ্রহ পায় প্রোটিয়ারা।

জবাবে, ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই হোঁচট খায় মধ্যপ্রাচের দেশটি।  দলীয় ২৯ রানে বেরেনজারকে হারানোর পর, মরকেলের গতির সামনে অসহায় আত্মসমর্পণ করে আরব আমিরাতের ব্যাটসম্যানরা।  ফলে ৪৫ রানেই ৩ উইকেট হারায় দলটি।  এরপর ৪র্থ উইকেটে ৬৩ রান যোগ করেন শাইমান আনোয়ার ও স্বপ্নিল পাতিল।  আনোয়ার ৩৯ রানে আউট হবার পর, সাকলাইন হায়দার ও আমজাদও সাজঘরে ফিরলে ১২৫ রানে ৬ উইকেট হারায় আরব আমিরাত।

এরপর ব্যাটসম্যানরা উইকেটে থিতু হতে পারেননি।  প্রোটিয়া বোলারদের সামনে অসহায় আত্মসমর্পন করেন তারা।  ১৯৫ রানেই গুটিয়ে যায় আমিরাতের ইনিংস।