রাজনীতি

বিশ্বইজতেমার সময়ে অবরোধের ডাক দিয়ে প্রমাণ করেছে বিএনপি ইসলামের শত্রু -রেলমন্ত্রী

1oooo নিজস্ব প্রতিবেদক : রেলপথমন্ত্রী মোঃ মুজিবুল হক এমপি বলেছেন. বিএনপি নেত্রী নির্বাচন এলে ধর্মের কথা বলে নিজেদের ইসলামীক আদর্শের দল দাবি করলেও সত্যিকারঅর্থে ইসলামের জন্য তাদের কোন দরদ নেই। যা বিশ্ব ইজতেমার সময়ে তথাকথিত অবরোধের ডাক দিয়ে প্রমাণ করেছে। দেশের মানুষের নিকট আজ স্পষ্ট যে বিএনপি ইসলামের শত্রু । বিএনপি নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া দেশ ও জাতির শত্রু জামায়াত শিবিরকে লালনপালন করে উস্কানিদিয়ে দেশের কোটি কোটি টাকার সম্পদ নষ্ট করছে। দেশের শান্তিপূর্ণ পরিস্থিতিকে বিএনপি ঘোলাটে করতে অপচেষ্টা চালাচ্ছে। তারা বিগত সময়ে এসব আন্দোলনের নামে মানুষ হত্যা করেছে বর্তমানে তারা মানুষ হত্যায় নেমেছে। তাদের সকল ধোকাবাজি জনগণ বুঝেগেছে। তারা অতীতেও ব্যর্থ হয়েছে আজকের দিনেও ব্যর্থ হবে। মন্ত্রী গতকাল ০৯ জানুয়ারী শুক্রবার বিকেলে চৌদ্দগ্রাম উপজেলার কনকাপৈত ইউনিয়নের জাগজুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন ভবনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।
2স্কুল পরিচলানা কমিটির সভাপতি আলহাজ্ব আব্দুস সাত্তারের সভাপতিত্বে এসময় অন্যান্যদের মাঝে বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুস সোবহান ভূঁঞা হাসান, উপজেলা আওয়ামীলীগের সধারণ সম্পদক সামছুদ্দীন আহমেদ চৌধুরী সেলিম, জেলা আওয়ামীলীগ সদস্য আলী হোসেন চেয়ারম্যান, চৌদ্দগ্রাম পৌরসভার মেয়র মিজানুর রহমান, উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা দেবময় দেওয়ান, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান নরুল ইসলাম হাজারী, উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা আক্তার হোসেন পাটোয়ারী, নাঙ্গলকোট উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ ইউসুফ, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডর আবুল হাসেম, বাতিসা ইউপি চেয়ারম্যান জাহিদ হোসেন টিপু, উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক ও শ্রীপুর ইউপি চেয়ারম্যান শাহজালাল মজুমদার, কনকাপৈত ইউপি চেয়ারম্যান বেলাল হোসেন শান্ত, গুনবতি ইউপি চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন, উপজেলা কৃষকলীগ সভাপতি মাষ্টার আব্দুল মান্নান ও মুক্তিযোদ্ধা সাজেদুল হক তাহের প্রমূখ। প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী আরো বলেন বিএনপির জনগনের নিকট কোন প্রকার গ্রহনযোগ্যতা নেই। কারণ তাদের আশে পাশে স্বাধীনতা বিরোধী রাজাকারদের অবস্থান। দেশের মানুষ বর্তমানে শান্তিতে আছে তা খালেদা জিয়ার সহ্য হচ্ছেনা। বিএনপি এখন দেশের উন্নয়ন দেখে দিশেহারা। তাই তারা আন্দোলনের নামে মানুষকে বিভ্রন্ত করছে। প্রসঙ্গত অবহেলিত জাগজুর গ্রামে নতুন একটি সরকারী প্রথামিক বিদ্যালয় পেয়ে গ্রামের সাধারণ জনগণের মাঝে উৎসব মুখোর পরিবেশ বিরাজ করতে দেখা গেছে।