রাজনীতি

সরকার রক্তের হোলি খেলায় মেতেছে : ফখরুল

ঢাকা, ২৮ ফেব্রুয়ারি (হটনিউজ২৪বিডি.কম) : বহুদলীয় গণতন্ত্রকে পদদলিত করে জোর করে ক্ষমতা আঁকড়ে রাখার উদ্দেশ্যে সরকার দেশে রক্তের হোলি খেলায় মেতে উঠেছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। জনমনে ভীতি ও শঙ্কা সৃষ্টি করতে উপজেলা নির্বাচনের প্রাক্কালে ‘অবৈধ’ সরকার দেশে খুনের মাত্রা বহুগুণ বাড়িয়ে দিয়েছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি।

শুক্রবার বিকেলে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে এসব কথা বলেন মির্জা ফখরুল।

বাগেরহাটের মোড়েলগঞ্জ উপজেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মান্নান খানের ওপর হামলা চালিয়ে আওয়ামী সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা হাত পায়ের রগ কেটে দিয়েছে বলে অভিযোগ করেন তিনি।

বিবৃতিতে বলা হয়, আজ জুমা নামাজের আগে এ ঘটনা ঘটানো হয়েছে। আসন্ন ১৫ মার্চ উপজেলা নির্বাচনে মান্নান ভাইস চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী। বর্বরতার শিকার মান্নান এখন হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন।

এ ঘটনায় তীব্র নিন্দা জানিয়ে মির্জা আলমগীর বলেন, এটি সরকার কর্তৃক বিরোধী দলকে নিশ্চিহ্ন করার গভীর ষড়যন্ত্র। উপজেলা নির্বাচন চলাকালীন বিরোধীদলীয় নেতা-কর্মীদেরকে মিথ্যা মামলায় জড়িয়ে গ্রেফতার করা হচ্ছে বলেও বিবৃতিতে উল্লেখ করেন তিনি।

মির্জা ফখরুল আরো বলেন, বর্তমান ‘অবৈধ’ সরকার ভেবেছে যে, বিরোধী দলের নেতা-কর্মীদেরকে গুম, অপহরণ এবং হত্যা করে দেশকে বিরোধী দল শূন্য করার মাধ্যমে ক্ষমতাকে নিস্কণ্টক করা যাবে। আর এ কারণেই সন্ত্রাসের মাধ্যমে সারাদেশকে এক ভয়াবহ মৃত্যু উপত্যকায় পরিণত করেছে।

তিনি বলেন, আব্দুল মান্নানকে মৃত্যু পথযাত্রী করার ঘটনা বর্তমান নিষ্ঠুর গণবিচ্ছিন্ন সরকারের ধারাবাহিক বর্বর কর্মকাণ্ড থেকে কোন আলাদা ঘটনা নয়।

বিবৃতিতে মির্জা আলমগীর অবিলম্বে মান্নান খানের ওপর সন্ত্রাসী হামলাকারীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোর দাবি জানান এবং মান্নানের আশু সুস্থতা কামনা করেন।