প্রধান খবর

‘জনগণের কাছে গিয়ে তওবা করুন’-প্রধানমন্ত্রী

ঢাকা, ২২ ফেব্রুয়ারি (হটনিউজ২৪বিডি.কম) : বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে জনগণের কাছে গিয়ে তওবা করতে বললেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

আওয়ামী লীগ সরকারের অধীনে নির্বাচন সুষ্ঠু হবে না মনে করে দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নেয়নি বিএনপি। তবে তারা উপজেলা নির্বাচনে অংশ নিয়ে বেশিরভাগ উপজেলায় নির্বাচিত হয়েছে। এ প্রেক্ষাপটে খালেদা জিয়াকে উদ্দেশ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘এবার নাকে খত দিয়ে বাংলাদেশের মানুষের কাছে তওবা করুন। আর কোনোদিন এ ধরনের কথা (আওয়ামী লীগ সরকারের অধীনে নির্বাচন সুষ্ঠু হয় না) বলবেন না।’

রাজধানীর খামারবাড়িতে কৃষিবিদ ইনস্টিটিউট ভবনে শনিবার বিকেলে আওয়ামী লীগ আয়োজিত আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবসের আলোচনাসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

আওয়ামী লীগের সভাপতি বলেন, ‘ উনি (খালেদা জিয়া) আওয়ামী লীগের অধীনে উপজেলা নির্বাচনে এলেন এবং অধিকসংখ্যক চেয়ারম্যান পদে জয়লাভও করলেন। এতে আবার প্রমাণিত হলো, আওয়ামী লীগ সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন হয়।’

প্রধানমন্ত্রী আরো বলেন, ‘এক কান কাটা গেলে লোকে বাড়ির পাশ দিয়ে হাঁটে। দুই কান কাটা গেলে বাড়ির উঠান দিয়ে হাঁটে। ওনার (খালেদা) অবস্থা হয়েছে তেমন।’

সংসদ নির্বাচন বর্জন ও উপজেলা নির্বাচনে বিএনপির অংশ নেওয়া প্রসঙ্গে শেখ হাসিনা বলেন, ‘উনি (খালেদা) বললেন আওয়ামী লীগের অধীনে নির্বাচন করবেন না। যে থুতু খাবেন না বলে ফেলে দিলেন, তা তিনি আবার পরে চেটে খেলেন।’

আওমায়ী সরকারের বৈধতা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘জিয়াউর রহমান অস্ত্র ঠেকিয়ে ক্ষমতা দখল করলেন, ‘হ্যাঁ’ ‘না’ ভোটের মাধ্যমে ১১০ শতাংশ ভোট পেয়ে প্রেসিডেন্ট হলেন জিয়া। অবৈধ পন্থায় ক্ষমতা দখলকারী যে পার্টি নিজেই অবৈধ, তারা কীভাবে অন্যকে অবৈধ বলে? তাদের দলের জন্ম অবৈধ পন্থায় হওয়ায়, তারা সবকিছুতেই অবৈধ দেখেন।’

২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে মধ্য আয়ের দেশে পরিণত করার আশাবাদ ব্যক্ত করেন প্রধানমন্ত্রী।

আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও সংসদ উপনেতা সৈয়দা সাজেদা চৌধুরীর সভাপতিত্বে সভায় অন্যান্যের মধ্যে আরো বক্তব্য দেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, দলের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মতিয়া চৌধুরী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক, সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, শ্রমবিষয়ক সম্পাদক হাবিবুর রহমান সিরাজ, ঢাকা মহানগরের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এম এ আজিজ, সাধারণ সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া প্রমুখ।