চট্টগ্রাম রাজনীতি

ঢাকার পথে বিএনপি-জামায়াতের ১৫ হাজার নেতাকর্মী

চট্টগ্রাম, ২৬ ডিসেম্বর : ‘মার্চ ফর ডেমোক্রেসি’ কর্মসূচিতে অংশ নিতে বিএনপি-জামায়াতের কমপক্ষে ১৫ হাজার নেতাকর্মী চট্টগ্রাম থেকে ঢাকার উদ্দেশে যাত্রা শুরু করেছেন।

সড়ক ও রেলপথে খণ্ড খণ্ড ও বিচ্ছিন্নভাবে এসব নেতাকর্মী শুক্রবার সকালের মধ্যে ঢাকায় পৌঁছাবে বলে দলীয় সূত্র নিশ্চিত করেছে।

চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপি নেতারা জানিয়েছেন, আগামী ২৯ ডিসেম্বর ঢাকা অভিমুখে অভিযাত্রার সার্বিক প্রস্তুতি ইতিমধ্যে সম্পন্ন হয়েছে। চট্টগ্রাম মহানগরী থেকে বিএনপি ও এর অঙ্গসংগঠনের কমপক্ষে ১২ হাজার এবং জামায়াত-শিবিরের ৩ হাজার নেতাকর্মীকে ঢাকায় নেয়ার পরিকল্পনা ও প্রস্তুতি চূড়ান্ত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার সকাল থেকে এই পরিকল্পনা ও প্রস্তুতির বাস্তবায়ন শুরু হয়েছে বলে বিএনপি ও জামাতের একাধিক নেতা নিশ্চিত করেছেন। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এসব নেতা বলেছেন, ঢাকা যাওয়ার পথে পুলিশি হয়রানি, গ্রেপ্তার, বাধা এবং নানা প্রশাসনিক প্রতিবন্ধকতার আশঙ্কা রয়েছে। তাই বাধা পেরিয়ে নানা কৌশলে রাজধানীতে যাওয়ার পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে।

মহনগর বিএনপির কয়েকজন শীর্ষ নেতা জানান, বিশেষ পরিকল্পনার অংশ হিসেবে বিএনপি ও জামায়াত শিবিরের নেতাকর্মীরা একসাথে যাবেন না। স্ব স্ব উদ্যোগে ছোট ছোট দলে ভাগ হয়ে বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই কেউ বাসে, কেউ ব্যক্তিগত গাড়িতে করে, আবার কেউ ট্রেনে চড়ে ঢাকার পথে রওনা হয়েছেন। গন্তব্যে পৌঁছাতে সড়ক ও রেলপথের পাশাপাশি বিকল্প হিসেবে থাকছে নৌপথও।

চট্টগ্রাম থেকে ঢাকায় যাওয়ার পথে কোথাও বাধা দেয়া হলে ইঞ্জিনচালিত নৌযানে করে নেতাকর্মীদের ঢাকায় নিয়ে যাওয়া হবে। এজন্য বুধবার সন্ধ্যায় বেশ কয়েকটি নৌযানও বুকিং দিয়েছেন নগর যুবদল ও ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা। পুরান ঢাকা হয়ে তারা নয়াপল্টন এলাকায় পৌঁছাবেন।

ঢাকা যাওয়ার প্রস্তুতি ও পরিকল্পনা সম্পর্কে নগর বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি আবু সুফিয়ান জানান, নেতাকর্মীদের ঢাকায় নিয়ে যেতে বিশেষ পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে। যাওয়ার পথে পুলিশি ঝামেলার আশঙ্কায় আমরা বেশ কিছু কৌশলও নিয়েছি। এর একটি হলো নেতাকর্মীদের স্ব স্ব উদ্যোগে বাসে, ট্রেনে যেভাবে পারে ঢাকায় চলে যেতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। আশা করছি, প্রশাসনের সকল বাধা-বিপত্তি উপেক্ষা করে আমরা ঢাকায় পৌঁছাবো।

আবু সুফিয়ান আরো জানান, আমরা চট্টগ্রাম থেকে কমপক্ষে ১২ হাজার নেতাকর্মী ঢাকায় সমবেত করতে সক্ষম হবো। তবে এই সংখ্যা আরো বাড়তে পারে।

এদিকে চট্টগ্রাম মহানগর জামায়াত-শিবিরের কয়েকজন স্থানীয় নেতা নাম প্রকাশ না করার শর্তে জানান, চট্টগ্রাম থেকে তাদের কমপক্ষে ৩ থেকে ৪ হাজার নেতাকর্মী ঢাকা অভিযাত্রায় অংশ নেবে। ইতিমধ্যে তারা ঢাকা অভিমুখে রওনা হয়েছেন।

মহানগর বিএনপির অপর একটি সূত্র জানিয়েছে, থানা-ওয়ার্ড পর্যায়ের দায়িত্বশীল নেতারা স্ব স্ব কর্মী নিয়ে ঢাকার উদ্দেশে রওনা হবেন। ঢাকায় গিয়ে একটি পয়েন্টে সবাই সমবেত হবেন। এরপর সেখান থেকে মিছিল সহকারে নেতাকর্মীরা বিএনপির দলীয় কার্যালয় নয়াপল্টনে যাবেন।

বুধবার সন্ধ্যায় নগর যুবদল ও ছাত্রদলের কয়েকজন নেতা ঢাকার বেশকিছু আবাসিক হোটেল বুকিং দিয়েছেন বলেও সূত্রটি জানিয়েছে।

ঢাকা অভিযাত্রা কর্মসূচিতে অংশ নিতে ইতোমধ্যে ঢাকায় অবস্থান করছেন বিএনপির কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান ও চট্টগ্রামের প্রভাবশালী বিএনপি নেতা আবদুল্লাহ আল নোমান এবং নগর বিএনপির সভাপতি আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী।