আন্তর্জাতিক

আম আদমী পার্টির চমক

 বিনয় সিকদার, কলকাতা, ৮ ডিসেম্বর:  ভারতের পাঁচ রাজ্যের বিধানসভা ভোটের মধ্যদিয়ে লোকসভা ভোটের  সেমিফাইনাল ম্যাচ  দেখছে দেশটির বিভিন্ন স্তরের মানুষ। ভোটে মূলত দিল্লি, রাজস্থান ও মধ্যপ্রদেশের রাজ্যে ভরাডুবি কংগ্রেসের। একমাত্র ছত্তিসগড় রাজ্যে হাড্ডাহাড্ডি লডাই হয়েছে। বিজেপির এই জয়ের মধ্যে দিয়ে কার্যত মসনদের দিকে এগোলেন মোদী।

২০১৪’র লোকসভা নির্বাচনের আগে ‘সেমিফাইনালের’ রায়ের যে পূর্বাভাস এখনও পর্যন্ত মিলেছে তাতে তিন রাজ্যে কার্যত ধরাশায়ী হয়েছে কংগ্রেস। রাজস্থানে কংগ্রেসকে হারিয়ে ক্ষমতায় ফিরছে বিজেপি। মধ্যপ্রদেশে ক্ষমতা ধরে রেখেছে বিজেপি। তবে ছত্তিশগড়ে কংগ্রেস ও বিজেপির মধ্যে তীব্র লড়াই চলছে।

অন্যদিকে দিল্লিতে আবির্ভাবেই চমক দিয়েছে আম আদমি পার্টি। প্রথমবার লডাই করতে  নেমে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে এএপি। ক্ষমতাসীন কংগ্রেস দিল্লিতে রয়েছে তৃতীয় স্থানে।

এদিন সকাল আটটা থেকে চার রাজ্যের ১২৯ কেন্দ্রে কড়া নিরাপত্তায়  ভোট গণনা শুরু হয়। দিল্লিতে ক্ষমতাসীন কংগ্রেসকে কোণঠাসা করে প্রতিদ্বন্দ্বিতা হয়েছে অরবিন্দ কেজরিওয়ালের আম আদমি পার্টি (এএপি) এবং বিজেপির মধ্যে। মধপ্রদেশে টানা তৃতীয়বার ক্ষমতায় ফিরল বিজেপি।

বিজেপির রাজনাথ সিং বলেন, বিধানসভা ভোটেও কাজ করেছে মোদী ম্যাজিক। বিরোধী ভোট পেয়েছে আম আদমি পার্টি।

অন্যদিকে বিধানসভা ভোটে হেরে হাল ছাডছে না কংগ্রেস । রাহুল গান্ধী বলেন, আম আদমি পার্টি সাধারণ মানুষকে পাশে  পেয়েছ। আমরা এর থেকে শিক্ষা নিচ্ছি, আরও বেশি মানুষের কাছাকাছি আসতে হবে আমাদের। মোদী বিজেপি নেতা। দেশের প্রতি তার দৃষ্টিভঙ্গি আলাদা। আমাদের নিজেদেরও দৃষ্টিভঙ্গি রয়েছে। ভাল সরকার গড়া নয়, আমাদের লক্ষ্য মানুষের উন্নয়ন। আমাদের কাজ, নিজেদের বক্তব্য, উদ্দেশ্যকে বেশি করে মানুষের সামনে তুলে ধরা। আমি দলের তরফ  থেকে বিজেপিকে অভিনন্দন জানাই।

এছাড়াও সোনিয়া গান্ধী বলেন, ফলাফল গভীরভাবে খতিয়ে দেখতে হবে। কারণগুলো খুঁজে বের করতে হবে। আমরা হতাশ। বিরোধীদের অভিনন্দন।