চট্টগাম চাঁদপুর জাতীয় রাজনীতি

চাঁদপুরের পাঁচ আসন থেকে ১০ প্রার্থীর মনোনয়ন দাখিল

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক, চাঁদপুর:  দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিনে চাঁদপুর-৩
আসন থেকে আওযামীলীগ মনোনীত প্রার্থী ডাঃ দীপু মনি, চাঁদপুর-১ আসনের প্রার্থী ড. মহীউদ্দীন খান আলমগীর, চাঁদপুর-৪ আসনের প্রার্থী ড. মোঃ শামছুল হক ভ’ঁইয়াসহ মোট ৮ জন প্রার্থী মনোননয়নপত্র দাখিল করেছেন। বিদায়ী পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি পুলিশের প্রহরায় সকাল সাড়ে ১১ টার দিকে চাঁদপুরের জেলা প্রশাসক ও রিটানিং অফিসার মোঃ ইসমাইল হোসেনের কাছে মনোনয়ন দাখিল করেন। বেলা সাড়ে ১২ টায় নেতা-কর্মী ও পুলিশ বেস্টিত হয়ে বিদায়ী স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ড. মহীউদ্দীন খান আলমগীর কচুয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে মনোনয়ন দাখিল করেন। দুপুর দেড়টার দিকে বিশাল হোন্ডাবহর নিয়ে জেলা আ’লীগের সভাপতি ড. মোঃ শামছুল হক ভ’ঁইয়া জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে এসে মনোনয়ন দাখিল করেন। এছাড়া চাঁদপুর-৩ আসন থেকে দুই জন স্বতন্ত্র প্রার্থী, চাঁদপুর-২ থেকে জাপা প্রার্থী এমরান হোসেন, চাঁদপুর-৪ থেকে জাপা প্রার্থী মাইনুল ইসলাম মানু, চাঁদপুর-৫ আসন থেকে জাপা
প্রার্থী খোরশেদ আলম খুশু মনোনয়ন দাখিল করেন। এর আগে চাঁদপুর-২ আসন থেকে গত ৩০ নভেম্বর ঢাকা
মহানগর আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম মতলব উত্তর ও দক্ষিণ উপজেলা
নির্বাহী কর্মকর্তাদের কাছে এবং ১ জানুয়ারি চাঁদপুর-৫ আসনের আ’লীগ মনোনীত প্রার্থী ও সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অবসরপ্রাপ্ত মেজর রফিকুল ইসলাম জেলা প্রশাসকের কাছে মনোনয়ন দাখিল করেন। সব মিলিয়ে চাঁদপুরের পাঁচটি সংসদীয় এলাকা থেকে মোট ১০ জন প্রার্থী মনোনয়ন দাখিল করলেন। এর ভেতর চাঁদপুর-১ আসন থেকে আ’লীগ মনোনীত প্রার্থী ড. মহীউদ্দীন খান আলমগীর ছাড়া আর কেউ মনোনয়ন দাখিল করেনি। মনোনয়নপত্র দাখিলের পর এক তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় বিদায়ী পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও বাংলাদেশ আ’লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ডাঃ দীপু মনি বলেন, বিরোধীদল হেরে যাবার ভয়ে নির্বাচনে আসছে না। তারা জনগণকে ভয় পায়। তিনি জানান বিরোধীদল নির্বাচনে এলে নির্বচন কমিশন অবশ্যই নির্বাচনের তফসিল পুনর্বিবেচনা করবেন।