অর্থ ও বাণিজ্য জাতীয় ঢাকা প্রধান খবর

অবরোধ ও হরতালে ব্যবসায়ীদের চরম উদ্বেগ

 অর্থনৈতিক প্রতিবেদক, ঢাকা, ১ ডিসেম্বর:  অবরোধ ও হরতালে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআই। দেশের সার্বিক অর্থনৈতিক উন্নয়নে গতিশীলতা অব্যাহত রাখা এবং জনগণের বৃহত্তর স্বার্থে সকল রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দকে হরতাল ও অবরোধের মত কর্মসূচি প্রত্যাহারের জন্য আবারও আহ্বান জানিয়েছে সংগঠনটি।

শনিবার রাতে এক বিবৃতিতে এফবিসিসিআই জানায়, ‘আমরা মানুষ, জ্বালাও পোড়াও কর্মকাণ্ড সমর্থন করতে পারি না। অন্যদিকে এটাও বিশ্বাস করি জ্বালাও পোড়াও ও গ্রেপ্তার কোনটাই এই চলমান সমস্যার সমাধান নয়। অতিমাত্রায় রাজনৈতিক কর্মসূচির আড়ালে ধ্বংসাত্মক হরতাল, অবরোধ কর্মসূচিতে সামগ্রিকভাবে দেশের অর্থনীতি প্রায় ধ্বংসের সম্মুখীন।’

বিবৃতিতে আরো বলা হয়, ‘বিগত কয়েকদিন যাবৎ অব্যাহত সহিংসতায় সাধারণ জনজীবনে নৈরাজ্য সৃষ্টি হয়েছে। চলমান অবরোধ কর্মসূচির কারণে যাত্রী ও পণ্য সরবরাহ চরমভাবে ব্যাহত হচ্ছে। যানবাহন বন্ধ থাকায় সময়মতো কাঁচামালসহ অন্যান্য পণ্যসামগ্রী পরিবহন না হওয়ায় উৎপাদন কার্যক্রম ব্যাহত হচ্ছে এবং নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বেড়ে যাচ্ছে। ফলে সাধারণ জনগণ দুর্ভোগের স্বীকার হচ্ছেন।’

বিবৃতিতে বলা হয়, সম্প্রতি গাজীপুর কোনাবাড়ীতে স্ট্যান্ডার্ড গ্রুপের একটি পোশাক কারখানায় দুষ্কৃতকারীদের দ্বারা অগ্নিসংযোগের যে ঘটনা ঘটেছে তা দেশ ও জাতির জন্য এক বিশাল ক্ষতি ও নিন্দনীয়। এ ঘটনার ফলে এখানে কর্মরত প্রায় ১২ হাজার শ্রমিক কর্মহীন হয়ে পড়েছে। দুর্বৃত্তদের দ্বারা সংগঠিত এ জাতীয় কর্মকাণ্ডের ভার বহন করা ব্যবসায়ীদের পক্ষে কোনভাবে সম্ভব নয়।

বিবৃতিতে বলা হয়, রাজনীতি যেহেতু দেশের জনগণের কল্যানের জন্য সেহেতু দেশের জনগণের জানমাল ও রাষ্ট্রীয় সম্পদের নিরাপত্তা ও দেশের অর্থনীতি রক্ষা করাই রাজনীতিবীদদের অন্যতম পবিত্র দায়িত্ব বলে আমরা মনে করি।

সম্প্রতি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও মাননীয় বিরোধীদলীয় নেতার সাথে এফবিসিসিআই-এর নেতৃত্বে ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদলের সাক্ষাতকালে রাজনৈতিক সংকট নিরসনে পদক্ষেপ নিতে অনুরোধ জানানো হয়েছিল। ব্যবসায়ী সমাজ মনে করে দুই নেত্রী আলাপ-আলোচনায় আসলে তা দেশবাসীর জন্য শান্তির পথ সুগম করবে এবং সকল দলের অংশগ্রহনে সর্বমহলে গ্রহনযোগ্য একটি জাতীয় নির্বাচন অনুষ্ঠান করা সম্ভব হবে।