জাতীয় ঢাকা প্রধান খবর রাজনীতি

নেপথ্যে কথা হচ্ছে: কাদের

 নিজস্ব প্রতিবেদক,হটনিউজ২৪বিডি.কম:  নির্বাচনকালীন সর্বদলীয় সরকারে আনতে সরকার ‘নেপথ্যে’ বিএনপির সঙ্গে যোগাযোগ রাখছে বলে জানিয়েছেন যোগাযোগমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। সোমবার সকালে রাজধানীর রূপসী বাংলা হোটেলে এক অনুষ্ঠানে নির্বাচনকালীন সরকার নিয়ে বিরোধী দলের সঙ্গে সমঝোতায় পৌঁছানোর বিষয়েও আশার কথা শোনান আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলির এই সদস্য। তিনি বলেন, “সর্বদলীয় যে সরকার গঠন হচ্ছে সে সরকারে বিএনপির আসার সুযোগ রয়েছে। তাদের সাথে নেপথ্যে যোগাযোগ হচ্ছে।” এখন না হলেও নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার আগে যে কোনো সময় এই সরকারে বিএনপির আসার সুযোগ থাকছে বলে জানান তিনি। সফররত যুক্তরাষ্ট্রের সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী নিশা দেশাই বিসওয়ালের সঙ্গে রোববার সন্ধ্যায় মার্কিন রাষ্ট্রদূতের বাসায় রাজনীতিক ও নাগরিক সমাজের প্রতিনিধিদের একটি বৈঠক হয়। সেখানে বিএনপি ও জামায়াতের নেতাদের সঙ্গে আওয়ামী লীগের প্রতিনিধি দলে ওবায়দুল কাদেরও উপস্থিত ছিলেন। ক্ষমতাসীন দলের নেতা কাদের মনে করেন, বিরোধী দল নির্বাচনকালীন সরকারে না এলেও ‘আন্দোলনের অংশ হিসেবে’ নির্বাচনে আসবে। “নির্বাচনের একটি মিউজিক্যাল চেয়ার আছে। সে মিউজিক্যাল চেয়ার পরিস্থিতি কখন কোথায় নিয়ে ঠেকায় তা এই মুহূর্তে বলা যাবে না।” নির্বাচনের সময় নির্দলীয় সরকারের দাবিতে আন্দোলন করছে প্রধান বিরোধী দল বিএনপি। নির্দলীয় সরকার ছাড়া নির্বাচনে না যাওয়ার ঘোষণা রয়েছে তাদের। অন্যদিকে নির্বাচনকালীন সর্বদলীয় মন্ত্রিসভা গঠন করছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ। চিরেই এই রাজনৈতিক সংকটের সমাধান হবে বলে আশা প্রকাশ করেন ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, “আমাদের জীবনে সংকট আসে দুর্যোগ আসে আবার চলে যায়। আকাশের মেঘ যত কালো হোক তা সাময়িক। মেঘের আড়ালে সূর্য চির দিবসের। “কাজেই রাজনৈতিক সংকট নিয়ে হতাশার কারণ নেই। আশা করি সংকট থাকবে না, এখনো সময় ফুরিয়ে যায়নি।” দ্বিতীয় কাঁচপুর, দ্বিতীয় মেঘনা ও দ্বিতীয় গোমতী সেতু নির্মাণে পরামর্শক নিয়োগের চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠান এসব বলেন যোগাযোগমন্ত্রী।