জাতীয় ঢাকা

এক বছরেও সাংসদ জালাল মৃত্যু রহস্য উন্মোচন না হওয়ায় ক্ষোভ

images নেত্রকোনা প্রতিনিধি:  নেত্রকোনা-১ আসনের আওয়ামীলীগ দলীয় সাবেক সাংসদ ও আওয়ামীলীগের জাতীয় পরিষদের সদস্য জালাল উদ্দিন তালুকদারের মৃত্যু রহস্য এক বছরেও উদঘাটন না হওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন পরিবারের সদস্যসহ এলাকাবাসী। বুধবার জালাল তালুকদারের প্রথম মৃত্যু বার্ষিকীতে জালাল হত্যা প্রতিবাদ পরিষদ ও জালাল সেনা আয়োজন করে কবর জিয়ারত, দোয়া মাহফিল, শোক র‌্যালী ও আলোচনা সভা। এসব কর্মসূচিতে অংশ নেয়া স্থানীয় বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতা-কর্মী,জনপ্রতিনিধি ও সামাজিক-সাংস্কৃতিক নেতৃবৃন্দ দ্রুত জালাল মৃত্যু রহস্য উন্মোচন করে দায়ীদের আইনের আওতায় আনার দাবি জানান। ২০১২ সনের ২৫ অক্টোবর ভোর রাতে নিজ বাসভবনের শয়ন কক্ষে নিজের পিস্তলের গুলিতে গুরুতর আহত অবস্থায় উদ্ধার করা হয় জালাল তালুকদারকে। দ্রুত ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সেদিনই মারা যান তিনি। পরে শাহ কুতুব উদ্দিন রুয়েল থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন।দুর্গাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আলমগীর হোসাইন জানান, বর্তমানে হত্যা মামলাটি সিআইডি বিভাগ তদন্ত করছে।

বিকালে জহুরা জালাল বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে দুর্গাপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হরিছ বেগের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য রাখেন, কৃষকলীগের কেন্দ্রীয় সহসভাপতি ছবি বিশ্বাস, দুর্গাপুর উপজেলা কমিউনিষ্ট পার্টির সভাপতি দুর্গাপ্রসাদ তেওয়ারী, কলমাকান্দা উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মঞ্জুরুল হক তারা, জালাল পুত্র শাহ কুতুব উদ্দিন রুয়েল, জালাল হত্যা প্রতিবাদ পরিষদেও আহবায়ক অধ্যাপক লিয়াকত আলীসহ অন্যরা। এর আগে জালাল তালুকদারের দুর্গাপুর পৌর শহরের বাসভবন থেকে শোক র‌্যালীটি বের হয়ে বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে জহুরা জালাল বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে গিয়ে শেষ হয়।