অপরাধ চট্টগ্রাম জাতীয় প্রধান খবর

এক নারীকে গ্রাম্য বিচারে ৪০ দোররা

client110 জেলা প্রতিবেদক, কুমিল্লা, ২৪ সেপ্টেম্বর :  কুমিল্লার বরুড়া উপজেলায় মধ্যযুগীয় বর্বরতার শিকার হয়েছেন এক নারী। আহত নারী উপজেলার আগানগর ইউনিয়নের রাজাপুর গ্রামের এক সৌদী প্রবাসীর স্ত্রী। রোববার সকাল ৮টায় তাকে গ্রাম্য সালিশ বৈঠকে গ্রাম্য মাতব্বররা ফতোয়া দিয়ে ৪০ দোররা মারে। এর পর গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে বরুড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। স্থানীয় সূত্র জানায়, রাজাপুর গ্রামের ওই নারীর ঘরে শুক্রবার গভীর রাতে একই গ্রামের আবুল হোসেনের ছেলে বিল্লাল হোসেনকে চোর হিসেবে আটক করে বাড়ির লোকজন। আটকের পর সকাল হওয়ার আগেই আবার তাকে ছেড়ে দেয়া হয়। সকালে এ ঘটনা এলাকায় ছড়িয়ে যাওয়ার পর গ্রামের মাতব্বর ভিপি শাহজাহান, আবুল খায়ের, মোবারক হোসেনের নেতৃত্বে সকালে সালিশ বৈঠক বসে। বৈঠকে বিল্লাল হোসেনের সঙ্গে ওই নারীর পরকীয়ার সম্পর্ক রয়েছে এমন অভিযোগ এনে তাকে ৪০টি দোররা দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়।

এ সময় তিনি ওই সম্পর্কের কথা অস্বীকার করলেও বৈঠকের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ভিপি শাহজাহান তাকে ৪০টি দোররা মারেন। এর একপর্যায়ে অজ্ঞান হয়ে পড়েন। পরে তাকে বরুড়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।
এ ঘটনায় বিচারকদের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে।