জাতীয় প্রধান খবর

আমেরিকায় বছরে লক্ষাধিক লোক মিসিং হয় : পররাষ্ট্রমন্ত্রী

হটনিউজ ডেস্ক:

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. আব্দুল মোমেন বলেছেন, সন্ত্রাস-জঙ্গিবাদ দমনে বাংলাদেশ একটি সফল রাষ্ট্র। আমাদের আইন-শৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনীর বিশেষ সুনাম রয়েছে। এই সুনাম নষ্ট করতে বিভিন্ন ষড়যন্ত্র হচ্ছে। যারা লবিস্ট নিয়োগ করেছে তাদের আয়ের উৎস খুঁজে দেখা দরকার।

আজ শুক্রবার (২১ জানুয়ারি) যুক্তরাজ্যভিত্তিক সামাজি সংগঠন জেডআই ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে যুক্তরাজ্যের ব্যবসা পর্যটন ও বন্দর মন্ত্রী ভিজয় দারিয়ানানির নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধিদল সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলার নগদিপুর ছয়হাড়া ইসলামিয়া আরাবিয়া মাদরাসা ও সৈয়দ মনোহর আলী আটগ্রাম কলেজ পরিদর্শনকালে তিনি এসব কথা বলেন।

সম্প্রতি র‍্যাব কর্মকর্তাদের ওপর আমেরিকার নিষেধাজ্ঞার বিষয়ে কথা বলতে গিয়ে তিনি বলেন, ‘আমেরিকায় প্রতিবছর লক্ষাধিক লোক মিসিং হয়, এর দায়দায়িত্ব নেবে কে? আমাদের র‌্যাব বাহিনী কাজে-কর্মে দক্ষ। এ জন্যই তারা জনগণের আস্থা অর্জন করেছে। ‘

তিনি বলেন, হলি আর্টিজানের পর আর কোনো সন্ত্রাসী তৎপরতা হয়নি। এটা সম্ভব হয়েছে র‌্যাবের কারণে। ইউএস স্ট্যাট ডিপার্টমেন্ট সেটা স্বীকার করেছে। কিছু লোক যারা আইন-শৃঙ্খলা পছন্দ করে না, যারা সন্ত্রাস পছন্দ করে কিংবা অন্য ধরনের ড্রাগ পছন্দ করে তারাই র‌্যাবকে পছন্দ করে না, কারণ র‌্যাব তাদের বিরুদ্ধে কাজ করে। এটা খুবই দুঃখজনক।

মন্ত্রী আরো বলেন, ‘র‌্যাব তৈরি করেছে আমেরিকান ও ব্রিটিশরা। দ্য হ্যাব বিন ট্রেইন বাই ইউএসএ। ইউএসএ তাদের শিখিয়েছে তাদের রুলস অ্যান্ড এনগেজমেন্ট। কিভাবে মানুষের সাথে ব্যবহার করতে হবে, হাউ টু ইন্টারগেশন। এগুলো সব কিছু শিখিয়েছে আমেরিকা। তাদের রুলস অব এনগেজমেন্টে যদি কোনো দুর্বলতা থাকে, কোনো উইকনেস থাকে, এই রুলস অব এনগেজমেন্টে যদি কোনো হিউম্যান রাইট ভায়ারেট হয়, অবশ্যই আমরা সেখানে নতুন করে ট্রেনিং হবে। কিন্তু কোনো ব্যক্তিবিশেষের ওপর হঠাৎ করে এই যে সেংশনগুলো দেওয়া হয়েছে সেটা আনজাস্টিফাই। ‘

তিনি বলেন, ‘আমরা শুনে আসছিলাম বিএনপি নেতা হারিস চৌধুরী মিসিং, এখন জানি উনি দেশেই ছিলেন। মৌলভি সেজে তাবলিগ করতেন, গত বছরের সেপ্টেম্বর মাসে মৃত্যুবরণ করেন। এ ধরনের অনেক কাহিনি আমরা শুনি হঠাৎ হঠাৎ করে বাহির হয়। আর এসব তথ্য যাচাই-বাছাই না করে বড় বড় বিদেশি লোক না জেনে অভিযোগ করে। ‘

এ সময় উপস্থিত ছিলেন সংরক্ষিত নারী আসনের সংসদ সদস্য শামীমা শাহরিয়ার, যুক্তরাজ্যের স্বাস্থ্য ও সামাজিক পরিচর্যা কমিটির সদস্য পল ব্রিস্টো এমপি, কমনওয়েলথ এন্টারপ্রাইজের সিইও এবং বিনিয়োগ কাউন্সিলর সামান্তা কোহেন ও টম হান্ট এমপি, সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার এনামুল কবির ইমন, দিরাই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মাহমুদুর রহমান মামুন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবু সুফিয়ান, থানা ভারপ্রপ্ত কর্মকর্তা আজিজুর রহমান, জেড গ্রুপের কর্ণধার জিল্লুর হোসাইন, জগদল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শিবলী আহমেদ বেগ, নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান হুমায়ুন রশীদ লাভলু, লুতফুর রহমান এওয়ার মিয়া প্রমুখ।