জাতীয় ঢাকা

‘শিশাপাংমা’ জয় করতে চীন যাচ্ছেন নিশাত-মুহিত

Nishat--Muhit-sm20130914101542  স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, হটনিউজ২৪বিডি.কম,ঢাকা:  ৮ হাজার ১৩ মিটার ফুট উঁচু শিশাপাংমা পর্বত জয় করতে চীন যাচ্ছেন এভারেস্ট বিজয়ী এম এ মুহিত ও নিশাত মজুমদার। তারা দুই-দুইবার এভারেস্ট শৃঙ্গ এবং আরো অনেক পর্বত জয়ের পর এবার চীনের তিব্বতে অবস্থিত ‘শিশাপাংমা’ পর্বত জয় করতে যাচ্ছেন। শনিবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে আয়োজিত পৃথিবীর ১৪তম উঁচু ‘শিশাপাংমা’ পর্ব্বত আরোহণ উপলক্ষে আয়োজিত সম্মেলন ও পতাকা-প্রদান অনুষ্ঠানে এ তথ্য জানানো হয়। অনুষ্ঠানে বিশিষ্ট অতিথির উপস্থিতিতে তাদের হাতে বাংলাদেশের পতাকা তুলে দেওয়া হয়। পতাকা প্রদান শেষে ব্যারিস্টার রফিকুল হক বলেন, ‘এভারেস্ট এবং পর্বতজয়ীরা বাংলাদেশের গর্ব। আমি নিশাত মজুমদার ও এম এ মুহিতের জন্য শুভ কামনা করি, তারা যেন এভারেস্ট জয়ের মতো শিশাপাংমাও জয় করে সফলতার সঙ্গে দেশে ফিরে আসতে পারেন। অধ্যাপক ড. আনিসুজ্জামান বলেন, ‘মুহিত ও নিশাত বাংলাদেশের পতাকাকে বিভিন্ন দেশের পর্বতের ওপর বসিয়ে নিজের দেশকে বিশ্বের দরবারে সম্মানের আসনে সমাসীন করছে। আমি তাদের শুভ কামনা করি।’ তত্ত্ববধায়ক সরকারের সাবেক উপদেষ্টা ও গণসাক্ষরতা অভিযানের পরিচালক রাশেদা কে চৌধূরী বলেন, ‘বাংলাদেশের নারীরা শুধু হিমালয়ের শিখর নয়, সারাবিশ্ব জয় করারও সামর্থ্য রাখে।’ তিনি বলেন, ‘আমাদের দেশে অনেক সন্ত্রাস, দুর্নীতিবাজ রয়েছে। তাদের মধ্যে এই সন্তানেরা হলো উজ্জল নক্ষত্র। এই নক্ষত্রগুলোর আলোতেই সব অন্ধকার দূরীভূত হবে।’ অনুভূতি প্রকাশ করতে গিয়ে নিশাত ও মুহিত বলেন, ‘শিশাপাংমা হলো ঈশ্বরের আবাসস্থল। আমরা ঈশ্বরের আবাসস্থলে যাচ্ছি। আপনারা আমাদের জন্য শুভ কামনা করবেন!’ উল্লেখ্য, আগামী ১৭ সেপ্টেম্বর নিশাত ও মুহিত শিশাপাংমার উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করবেন। তাদের এই যাত্রায় স্পন্সর হিসেবে আছে গ্রামীণফোনসহ আরো অনেক ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান। শিশাপাংমা পৃথিবীর ১৪তম উঁচু পর্ব্বত। এটি চীনের অংশভুক্ত হওয়ায় ১৯৫০ সালে চীনের বাইরে কারো এটি পরিদর্শনে বিধিনিষেধ আরোপ করে চীন।