ঢাকা প্রধান খবর রাজনীতি

প্রার্থী শরীফ আহমেদ ও মোতাহার হোসেন তালুকদার

nirbachon20130830232631জেলা সংবাদদাতা,ময়মনসিংহ, ৩১ আগস্ট:   জমে উঠছে নবগঠিত তারাকান্দা উপজেলা পরিষদের নির্বাচন। তফসিল ঘোষনার পর থেকে নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি দুই দলের মাঝেই শুরু হয়েছে তোড়জোড়।

ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী আগামী ৩ অক্টোবর ময়মনসিংহের নবগঠিত এ উপজেলার নির্বাচনের ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

ক্ষমতাসীন ও প্রধান বিরোধী দলের সম্ভাব্য প্রার্থীরা এখন দলীয় সমর্থনের আশায় কেন্দ্রীয় প্রভাবশালী নেতাদের দূয়ারে দূয়ারে ভিড় করছেন। কেন্দ্রের গ্রীন সিগন্যাল পেলেই তাঁরা মাঠে নেমে পড়বেন।

এদিকে দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আর মাত্র কয়েক মাস বাকি থাকতে এ উপজেলা নির্বাচন বড় দু’দলের জনপ্রিয়তার পরীক্ষা হিসেবে দেখছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।

জানা গেছে, আওয়ামীলীগ নেতৃত্বাধীন মহাজোট সরকার ক্ষমতা গ্রহণের পর পরই অনুষ্ঠিত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ময়মনসিংহের ১০ টি উপজেলার মধ্যে ৮ টিতে ক্ষমতাসীন দল সমর্থিত প্রার্থীরা জয়লাভ করে। মাত্র দু’টি উপজেলায় বিএনপি সমর্থিত প্রার্থীরা জয়ী হয়।

বড় দু’দলের স্থানীয় নেতাকর্মীদের মতে, এ লড়াই জাতীয় নির্বাচনের নির্ধারক। এ কারণে সঠিক প্রার্থী বাছাই এ নির্বাচনে জয়-পরাজয় নির্ধারণে ফ্যাক্টর হতে পারে।

নির্বাচন কমিশন সূত্র মতে, তারাকান্দা উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ সময় আগামী ৫ সেপ্টেম্বর ও প্রত্যাহারের শেষ দিন ১৫ সেপ্টেম্বর নির্ধারণ করা হয়েছে। নির্বাচনী তফসিল ঘোষণার পর দুই দলই চিন্তিত নিজেদের মধ্যকার দলীয় কোন্দল নিয়ে।

সূত্র মতে, ময়মনসিংহ-২-ফুলপুর-তারাকান্দা আসন থেকে চারবার নির্বাচিত প্রয়াত সংসদ সদস্য ভাষা সৈনিক আওয়ামীলীগ নেতা শামসুল হকের পুত্র শরীফ আহমেদ এ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ক্ষমতাসীন দল থেকে সমর্থন পাচ্ছেন, এটা এক প্রকার নিশ্চিত।

গত সংসদ নির্বাচনে বর্তমান সংসদ সদস্য হায়াতুর রহমান বেলার কাছে মনোনয়ন যুদ্ধে হারার পর থেকেই দু’জনের মাঝে সাপে-নেউলে সম্পর্ক। এ দুই নেতার মধ্যকার বিরোধ ক্ষমতাসীন দলের জন্য দুশ্চিন্তার কারণ হতে পারে বলে মনে করছেন অনেকেই।

আর বিএনপি নির্বাচনে আসলে জেলা বিএনপির সাধারন সম্পাদক সাবেক ছাত্র নেতা মোতাহার হোসেন তালুকদার দলীয় সমর্থন পাবেন বলে একটি দায়িত্ব সূত্র জানায়।

তবে গ্রুপিং-কোন্দল নিয়ে স্বস্তিতে নেই বিএনপিও। বিএনপি’র সংস্কারপন্থী সাবেক সংসদ সদস্য শাহ শহীদ সারোয়ারের সাথে মনোনয়ন নিয়ে গত নির্বাচন থেকেই বিরোধ চলে আসছে উত্তর জেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক মোতাহার হোসেন তালুকদারের।

নিজেদের মধ্যকার বিরোধের ধারাবাহিকতায় যদি দলীয় সাবেক সাংসদ সারোয়ার, ডামি, ক্যান্ডিডেট মাঠে নামিয়ে বিপাকে ফেলতে পারেন দলকে।

তারাকান্দা উপজেলা নির্বাচনে আওয়ামীলীগের সমর্থন প্রত্যাশী সাবেক প্রয়াত সাংসদ শামসুল হক পুত্র তরুণ আওয়ামীলীগ নেতা শরীফ আহমেদ বলেন,‘আমার বাবা মরহুম শামসুল হক সাহেবের আজীবন লালিত স্বপ্ন ছিল তারাকান্দাকে উপজেলা করা। বাংলার প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা ঐতিহাসিক সার্কিট হাউজ মাঠে তারাকান্দাকে উপজেলা হিসেবে ঘোষনা দিয়ে বাবার স্বপ্ন তথা তারাকান্দাবাসীর স্বপ্ন পুরন করেছেন।

এখাকার দলীয় নেতাকর্মীরা চান আমি নব গঠিত এ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন করি। দলীয় হাইকমান্ড আমাকে সমর্থন দিলে অবশ্যই ভোটের ফসল আওয়ামী লীগের ঘরে উঠবে ইনশাআল্লাহ।’

উপজেলা নির্বাচনের ব্যাপারে বিএনপি’র সমর্থন প্রত্যাশী ময়মনসিংহ উত্তর জেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক মোতাহার হোসেন তালুকদার বলেন,‘ম্যাডাম অনুমতি দিলে নির্বাচন করবো। জাতীয় নির্বাচনের আগে আওয়ামীলীগের দু:শাসনের বিরুদ্ধে জনতা ব্যালটের মাধ্যমে জবাব দিবে।’