জাতীয় ঢাকা প্রধান খবর রাজনীতি

আ.লীগ-বিএনপি জনসমর্থন বাড়াতে মরিয়া

আছাদুজ্জামান, হটনিউজ২৪বিডি.কমA-B-0120130825133722 , ২৫ আগস্ট:  আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনকালীন নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দাবির আন্দোলনকে শক্তিশালী করতে বিএনপি’র সাংগঠনিক সফর আগামী ৩১ আগস্ট শেষ হচ্ছে। এরপর সেপ্টেম্বরে শুরু হবে চেয়ারপার্সনের বিভাগওয়ারি জনসভার কর্মসূচি।

একই সময়ে অর্থাৎ পহেলা সেপ্টেম্বর থেকে সরকারের বিভিন্ন উন্নয়ন ও সাফল্য জনগণের কাছে তুলে ধরতে সাংগঠনিক সফরে যাচ্ছে আওয়ামী লীগ।
বিএনপি তাদের ৭৫ টি সাংগঠনিক জেলাতে সফর করতে কেন্দ্রীয় নেতাদের প্রধান করে ৫৬ টি টিম গঠন করেছেন। এরই মধ্যে অনেক টিম বিভিন্ন জেলাতে সফর শুরুও করেছেন। কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় নেতাদের সমন্বয়ে টিমে ১০ জন সদস্য রয়েছেন। আগামী ৩১ আগস্টের মধ্যে এ সফর শেষ হওয়ার কথা রয়েছে।
দলীয় সূত্রে জানা যায়, ৫৬টি টিমে প্রধান হিসেবে আছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব, স্থায়ী কমিটির সদস্য, ভাইস চেয়ারম্যান, দলের চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য, যুগ্ম মহাসচিব, সাংগঠনিক সম্পাদকসহ সম্পাদকমণ্ডলীর অনেক সদস্য।
এ সকল টিম গণসংযোগ ও মাঠ পর্যায়ে দলের নানা তথ্য সংগ্রহ করে দলীয় চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার কাছে রিপোর্ট পেশ করবেন বলে জানা গেছে।
আওয়ামী লীগও সাংগঠনিক সফর উপলক্ষে কার্যনির্বাহী সংসদ ও উপদেষ্টা পরিষদের নেতৃবৃন্দ এবং মন্ত্রী পরিষদ ও জাতীয় সংসদ সদস্যদের সমন্বয়ে ১৫টি টিম গঠন করেছে। প্রতিটি টিমে সংশ্লিষ্ট এলাকার দায়িত্বপ্রাপ্ত সাংগঠনিক সম্পাদকগণ, স্থানীয় সংসদ সদস্য ও সংরক্ষিত আসনের নারী সংসদ সদস্যগণ থাকবেন। শনিবার দলের উপ দফতর সম্পাদক মৃণাল কান্তি দাস স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপিতে এ তথ্য জানিয়েছেন।
আওয়ামী লীগের ১৫ টিমের নেতৃত্বে যারা
নারায়ণগঞ্জ, নরসিংদী, মুন্সিগঞ্জ, মানিকগঞ্জ, গাজীপুর, ঢাকা জেলা নিয়ে গঠিত টিম- ১ এ নেতৃত্বে থাকবেন সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী। খুলনা মহানগর, খুলনা জেলা, বাগেরহাট, কুষ্টিয়া, মেহেরপুর, চুয়াডাঙ্গা, নড়াইল জেলা নিয়ে গঠিত টিম-২ এ নেতৃত্বে রয়েছেন তোফায়েল আহমদ ও মাহবুব-উল-আলম হানিফ। দিনাজপুর, পঞ্চগড়, ঠাকুরগাঁও, নীলফামারী জেলা নিয়ে গঠিত টিম-৩ ও রংপুর, রংপুর মহানগর, লালমনিরহাট, কুড়িগ্রাম, গাইবান্ধা নিয়ে গঠিত টিম-৪ এর নেতৃত্বে রয়েছেন আবদুল লতিফ সিদ্দিকী, রাজশাহী মহানগর, রাজশাহী জেলা, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, নওগাঁ, নাটোর নিয়ে গঠিত টিম-৫ এ নেতৃত্বে আছেন মোহাম্মদ নাসিম, পাবনা, সিরাজগঞ্জ, বগুড়া, জয়পুরহাট নিয়ে গঠিত টিম-৬ এ থাকবেন আমির হোসেন আমু।
অন্যদিকে, রাঙ্গামাটি, খাগড়াছড়ি, বান্দরবান, কক্সবাজার নিয়ে টিম-৭ এ থাকবেন ওবায়দুল কাদের, চট্টগ্রাম মহানগর, চট্টগ্রাম উত্তর, চট্টগ্রাম দক্ষিণ নিয়ে গঠিত টিম-৮ এ থাকছেন সাহারা খাতুন, নোয়াখালী, লক্ষ্মীপুর, ফেনী নিয়ে গঠিত টিম-৯ এ নেতৃত্বে থাকবেন ওবায়দুল কাদের। কুমিল্লা উত্তর, কুমিল্লা দক্ষিণ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, চাঁদপুর, নিয়ে টিম -১০ এ থাকবেন শেখ ফজলুল করিম সেলিম।
এছাড়া ফরিদপুর, শরীয়তপুর, গোপালগঞ্জ, মাদারীপুর, রাজবাড়ী নিয়ে গঠিত টিম-১১ এ নেতৃত্বে রয়েছেন সতীশ চন্দ্র রায়, ময়মনসিংহ, জামালপুর, শেরপুর, টাঙ্গাইল, নেত্রকোনা, কিশোরগঞ্জ নিয়ে গঠিত টিম-১২ এ রয়েছেন কাজী জাফর উল্লাহ, যশোর, মাগুরা, সাতক্ষীরা, ঝিনাইদহ নিয়ে গঠিত টিম-১৩ এ নেতৃত্বে থাকছেন বেগম মতিয়া চৌধুরী, সিলেট, সিলেট মহানগর, সুনামগঞ্জ, মৌলভীবাজার, হবিগঞ্জ নিয়ে গঠিত টিম-১৪ এ নেতৃত্বে দিবেন সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম, বরিশাল, বরিশাল মহানগর, ভোলা, পটুয়াখালী, বরগুনা, পিরোজপুর, ঝালকাঠি নিয়ে গঠিত টিম-১৫ এ নেতৃত্বে থাকছেন আমির হোসেন আমু।
বিএনপির সাংগঠনিক ৫৬টি টিমের নেতৃত্বে যারা
ঢাকা মহানগর, মুন্সিগঞ্জ ও মানিকগঞ্জ জেলাতে দলের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, সিলেট জেলা ও মহানগরে ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, পঞ্চগড় ও ঠাকুরগাঁও এ স্থায়ী কমিটির সদস্য লেফটেন্যান্ট জেনারেল অব. মাহবুবুর রহমান, নারায়ণগঞ্জে ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, দিনাজপুরে ব্যারিস্টার জমির উদ্দিন সরকার, রংপুরে ব্রিগেডিয়ার জেনারেল অব. আ স ম হান্নান শাহ, সিরাজগঞ্জে রাজশাহী জেলা ও মহানগরে নজরুল ইসলাম খান, যশোরে তরিকুল ইসলাম, বরিশাল মহানগর ও বরিশালে মির্জা আব্বাস, ময়নমসিংহ উত্তর ও দক্ষিণে ব্যারিস্টার রফিকুল ইসলাম মিয়া, মাদারীপরে ও শরিয়তপুরে গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, চট্টগ্রাম উত্তর ও দক্ষিণে এম কে আনোয়ার, ফরিদপুরে ড. আব্দুল মঈন খান।
এছাড়া কিশোরগঞ্জ ও ঝিনাইদহে ভাইস চেয়ারম্যান সাদেক হোসেন খোকা, নেত্রকোনায় বেগম সেলিমা রহমান, ঢাকা জেলা, নোয়াখালী ও নরসিংদীতে আব্দুল্লাহ আল নোমান, রাজবাড়ীতে চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ, হবিগঞ্জে শমসের মবিন চৌধুরী, কুমিল্লা দক্ষিণে মীর মোহাম্মদ নাসির উদ্দিন, কক্সবাজারে এম মোর্শেদ খান, ভোলাতে আলতাফ হোসেন চৌধুরী, পিরোজপুরে মেজর অব. হাফিজ উদ্দিন আহমেদ।
অন্যদিকে, নড়াইলে বিএনপি চেয়ারপারসরেন উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য অ্যাডভোকেট আহমেদ আযম খান, বরগুনায় অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহাবুব হোসেন, টাঙ্গাইলে ড. ওসমান ফারুক, ব্রাহ্মণবাড়িয়াতে অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন ও ব্যারিস্টার শাজাহান ওমর, ফেনীতে আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী, লক্ষীপুরে মুশফিকুর রহমান রাঙামাটিতে আব্দুল আউয়াল মিন্টু, বগুড়া ও পাবনায় ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু, চাঁপাইনবাবগঞ্জে ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন, মেহেরপুরে শামসুজ্জামান দুদু, সৈয়দপুরে ফজলুর রহমান পটল।
মাগুরা ও বরিশাল দক্ষিণে যুগ্ম মহাসচিব আমান উল্লাহ আমান, খুলনা জেলা ও মহানগরে মিজানুর রহমান মিনু, মৌলভীবাজার ও সুনামগঞ্জে মো. শাহজাহান, কুমিল্লা উত্তরে বরকত উল্লাহ বুলু, চাঁদপুরে সালাহ উদ্দিন আহমেদ।
বান্দরবানে সাংগঠনিক সম্পাদক গোলাম আকবর খোন্দকার, কুড়িগ্রাম ও গাইবান্ধায় আসাদুল হাবিব দুলু, কুষ্টিয়াতে মশিউর রহমান, ঝালকাঠি ও পটুয়াখালীতে অ্যাডভোকেট মজিবুর রহমান সরোয়ার, শেরপুরে ফজলুল হক মিলন।
সাতক্ষীরাতে আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ড. আসাদুজ্জামান রিপন, জামালপুরে প্রচার সম্পাদক জয়নুল আবদিন ফারুক, গোপালগঞ্জে কাজী আসাদুজ্জামান, চট্টগ্রাম দক্ষিণে আবুল খায়ের ভূইয়া, খাগড়াছড়িতে হাবিব-উন-নবী খান সোহেল, লালমনিরহাটে শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী, জয়পুরহাটে অ্যাডভোকেট হারুন আল রশিদ, নওগাঁতে মো. হারুন অর রশিদ, চুয়াডাঙ্গা ও বাগেরহাটে অ্যাডভোকেট নিতাই রায় চৌধুরী এবং নাটোরে সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল।