বরিশাল রাজনীতি

দু পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে ১০ নেতা কর্মী আহত

083নিজস্ব সংবাদদাতা, পটুয়াখালী, ৩০ জুলাই :পটুয়াখালীতে ছাত্রদলের পূর্ব নির্ধারিত মিছিলে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দু পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে বিএনপি নেতাসহ ছাত্রদলের কমপক্ষে ১০ নেতা কর্মী হতাহত হয়েছেন। আশংকা জনক অবস্থায় মাদারবুনিয়া ইউনিয়ন ছাত্রদলের আহবায়ক রুবেলকে বলিশাল শেরে বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার সকাল সারে ১১ টায় পটুয়াখালী শহরের বটতলা ও সদর হাসপাতাল চত্বরে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও স্থানিয়রা জানান, ছাত্রদলের একটি মিছিল আজ বেলা ১১ টায় বটতলা থেকে শুরু হয়। মিছিলটি সবুজবাগ ঘুড়ে আবার বটতলায় ফেরার পথে কাজী পাড়া এলাকায় কথা কাটা কাটির এক পর্যায়ে কিছু ছাত্রদল কর্মী হাতাহাতিতে জরিয়ে পরে। এ সময় পুলিশ ও ছাত্রদল নেতারা তাদের দু’দিকে সড়িয়ে দেয়। পরে আবারো বটতলায় হঠাৎ করেই কিছু ছাত্রদল কর্মী মাদারবুনিয়া ইউনিয়ন ছাত্রদলের আহবায়ক রুবেলের উপর হামলা চালায় এতে রুবেল গুরুত্বর আহত হন। আশংকাজনক অবস্থায় তাকে পটুয়াখালী সদর হাসপাতালে নেয়া হলে ছাত্রদল কর্মীরা স্থানিয় যুবক সঞ্চয়কে হামলার সাথে জড়িত সন্দেহে মারধর করে এতে করে স্থানিয়দের সাথে ছাত্রদল নেতাকর্মীদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় বিএনপি নেতা দুলাল মাতবর, যুবদল কর্মী আবুল বাসারসহ আরো বেশ কয়েক জন নেতাকর্মী আহত হয়। পরে পুলিশ লাঠিচার্জ করে নেতাকর্মীদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়। এ ঘটনায় শহর জুড়ে আতংক বিরাজ করছে।

পটুয়াখালী সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মনিরুল ইসলাম জানান অভিযোগ পেলে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনআনুক ব্যবস্থা নেয়া হবে।