প্রধান খবর রংপুর

দেশে প্রতিহিংসার রাজনীতি শুরু হয়েছে-এরশাদ

image_535_75206রংপুর অফিসধ:জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেছেন, দেশে প্রতিহিংসার রাজনীতি শুরু হয়েছে। এতে করে দেশ পিছিয়ে পড়ছে। দেশকে এগিয়ে নিতে হলে প্রতিহিংসার রাজনীতি পরিহার করতে হবে। রোববার বিকেলে রংপুরের মাহিগঞ্জ ডিগ্রী কলেজের একাডেমিক ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনকালে এক জনসভায় তিনি এসব কথা বলেন।

এরশাদ বলেন, ১৯৯০ সালের পর থেকে দেশে সুষ্ঠু ও সঠিক রাজনীতি চর্চা হয়নি। আর এরফলে গণতন্ত্র বাধাগ্রস্থ হচ্ছে। তাই তিনি ভেদাভেদ ভুলে সকলকে দেশকে উন্নতির পথে নিয়ে যাওয়ার জন্য একযোগে কাজ করার আহবান জানান।

জাপা চেয়ারম্যান বলেন, দেশ মেধা শুন্য হয়ে যাচ্ছে। কারণ প্রকৃত মেধাবিরা চাকুরিতে আসতে পারছেন না কোটার কারণে। কোটা পদ্ধতির কারণে কম মেধাবিরাই সুযোগ পেয়ে যাচ্ছে। তিনি আরো বলেন, এ অঞ্চল হচ্ছে জাতীয় পার্টির ঘাঁটি। এ ঘাঁটিকে ধরে রাখতে হলে আমাদের এখন থেকেই কাজ করতে হবে। দলের মধ্যে কারো হয়ত মনকষ্ট থাকতে পারে কিন্তু সেসব ভুলে একসাথে কাজ করতে হবে। দেখিয়ে দিতে হবে জাতীয় পার্টি দুর্বল নয় শক্তিশালী। জাপা চেয়ারম্যান বলেন, এবার আমরা এককভাবে নির্বাচন করব, জোটবদ্ধ ভাবে নয়। তাই তিনশ আসনেই প্রার্থী দিব। প্রার্থী বাছাইও প্রায় শেষের দিকে।

ভিত্তিপ্রস্তর অনুষ্ঠানের ওই জনসভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি সাবেক সাংসদ মসিউর রহমান রাঙ্গা। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জাপা কেন্দ্রীয় নেতা পীরগাছা উপজেলা চেয়ারম্যান শাহ আবু নাসের, ফখর-উজ-জামান জাহাঙ্গীর, জেলা জাপার সাধারন সম্পাদক আবুল মাসুদ চৌধুরি নান্টু, মহানগর জাপার সাধারন সম্পাদক অ্যাডভোকেট সালাহ উদ্দিন কাদেরী, মাহিগঞ্জ ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ আফম রবিউল হক সরকার, কাউন্সিলর মোক্তার হোসেন, ম্যানেজিং কমিটির সদস্য অ্যাডভোকেট শাহজাহান আলী প্রমুখ। পরে জাপা চেয়ারম্যান এরশাদ কলেজটির উন্নয়নে আর্থিক সহায়তারও আশ্বাস দেন। পরে তিনি মমিনপুর স্কুল ও কলেজ মাঠের জনসভায়ও বক্তব্য রাখেন ।