জাতীয় প্রধান খবর

শ্রম আইন আবার সংশোধন হচ্ছে

Pm_2-bg20130701033813ঢাকা: জেনারেলাইজড সিস্টেম অব প্রেফারেন্সেস (জিএসপি) ফিরে পেতে আবারো শ্রম আইন সংশোধন করার উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। এ লক্ষ্যে একটি কমিটি গঠন করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

সোমবার সচিবালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। বৈঠক শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোশাররাফ হোসাইন ভূঁইঞা সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

এর আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে সচিব জানান, আইনটি রিভাইজ করতে বর্তমান মন্ত্রী এবং সাবেক মন্ত্রীদের নিয়ে রিভাইজ কমিটি করা হবে।

এদিকে, গত ২০ জুন শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটি বাংলাদেশ শ্রম (সংশোধন) আইন’২০১৩ এর বিল চূড়ান্ত করে।

আইনের বিলটি চূড়ান্ত করার আগে থেকেই শ্রমিকদের অধিকার নিয়ে বিভিন্ন মহল থেকে দাবি জানানো হয়। যুক্তরাষ্ট্রও আইনটি পাসের জন্য দাবি জানিয়ে আসছে।

এরই মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রে শুল্কমুক্ত পণ্য প্রবেশের সুবিধা জিএসপি বাতিল করা হয়।

এরপর সোমবার মন্ত্রিসভায় শ্রম আইন অধিকতর সংশোধনের উদ্যোগ নিতে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

মন্ত্রিসভার বৈঠকের পর মোশাররাফ হোসাইন ভূঁইঞা বলেন, শ্রমিকদের অধিকার প্রতিষ্ঠায় আইনটির রিভাইজ করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

শ্রম আইন’২০০৬ সংশোধনের জন্য শ্রমিকরা দীর্ঘদিন ধরে আন্দোলন করে আসছেন। ক্ষমতাসীন মহাজোট সরকারের এ দাবি বান্তবায়নের প্রতিশ্রুতিও ছিল।

সর্বশেষ গত ৫ জুন জাতীয় সংসদে ‘বাংলাদেশ শ্রম (সংশোধন) আইন’২০১৩’ নামের বিলটি উত্থাপন করা হয়। পরে বিলটি অধিকতর পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটিতে পাঠানো হয়। কমিটি বিলটি নিয়ে গত ১৩ জুন থেকে তিন দিনব্যাপী গণশুনানি করে।

শুনানিতে পাওয়া পরামর্শ ও আপত্তি নিয়ে গত দু’দিন সংসদীয় কমিটির বৈঠকে আলোচনা শেষে সুপারিশ চূড়ান্ত করা হয়েছে।